সংবাদ শিরোনাম

আরও সংবাদ

6 Comments

  1. 1

    Anis Chowdhury

    They didn’t have time to research as they were busy to teach the nation how to justify midnight election, extra judicial killings, ass lickin and sell the souls.

    Reply
    1. 1.1

      Siraphat Sribuntam

      well said! This lady, samia rahman is a supporter of vote dakat govt.

      Reply
  2. 2

    Samiunnabi Hossain

    Well said! But I doubt if she will be punished. She is a promoter of Hasina’s politics, she is untouchable.

    Reply
  3. 3

    সত্যান্বেসী

    They are the King of বাটপার।
    As well as thay are the master of চোর।

    Reply
  4. 4

    Siraphat Sribuntam

    ………………..ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের দুই শিক্ষকের প্রকাশিত প্রবন্ধটি আট পৃষ্ঠার। আর এই আট পৃষ্ঠার প্রায় পাঁচ পৃষ্ঠাই মিশেল ফুকোর ‘দি সাবজেক্ট অ্যান্ড পাওয়ার’ প্রবন্ধ থেকে হুবহু নেয়া।….

    প্রায় ৪০ বছর আগে প্রকাশিত প্রবন্ধ যারা স্রেফ চুরি করে নিজেদের নামে চালিয়ে দেয়, তাদের তো বরখাস্ত ও জেল-জরিমানা করার কথা। কিন্তু কিছুদিনের মধ্যেই দেখা যাবে তারা বড় গলায় তাদের চুরির সাফাই গাইছে এবং তাদের এই চুরির সমর্থনকারী লোকও দৃশ্যপটে হাজির হবে। এসব শিক্ষক নামধারী আবর্জনা ভোট ডাকাত সরকারের প্রোডাক্ট!

    Reply
  5. 5

    Siraphat Sribuntam

    গতকাল ‘প্রথম আলো’ পত্রিকায় এই দুই চোর শিক্ষকের সাফাই গেয়ে একটি লেখা প্রকাশিত হয়েছে। ওই লেখায় জনৈক অস্ট্রেলিয়া প্রবাসী ব্যক্তি খুব গোস্বা হয়ে বলেছে, কেন এই দুই চোর শিক্ষকের ছবি পত্রিকায় ছাপা হলো, কেন তাদের চুরির খবর এভাবে বিভিন্ন পত্রিকায় ফলাও করে ছাপা হলো? চোরের সাক্ষী পকেটমার! প্রথম আলোর গণবিরোধী ভূমিকা খুবই স্পষ্ট। তারা প্রবন্ধ-চোর শিক্ষক নামধারী দৃর্বৃত্তদের পক্ষ নিয়েছে!

    Reply

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

© স্বত্ব আমার দেশ ২০০৮ – ২০২০